আসছে ফ্লেক্সিবল ডিসপ্লের স্মার্টওয়াচ নুবিয়া আলফা

২০১৯ সালে এসে স্মার্টওয়াচ নতুন কিছু নয়। একসময় স্যামসাং কিংবা অ্যাপল স্মার্টওয়াচ এর বাজারে রাজত্ব করলেও এখন চাইনিজ কোম্পানিগুলোও পিছিয়ে নেই। শাওমি তো স্মার্টওয়াচ ইন্ডাস্ট্রির এর শক্তিশালী নাম। অন্যান্য চাইনিজ কোম্পানিগুলোও সমান তালে এগিয়ে যাচ্ছে। এমনকি তারা চমৎকার সব উদ্ভাবন ও নিয়ে আসছে।

সম্প্রতি জেডটিই তাদের নুবিয়া ব্র্যান্ড এর আওতায় নুবিয়া আলফা নামক নতুন এক স্মার্টওয়াচ এর ঘোষণা দিয়েছে। ইতিমধ্যে স্মার্টওয়াচটি প্রিঅর্ডার এর জন্য আহবান করা হচ্ছে। অন্যান্য স্মার্টফোন থেকে এর বিশেষত্ব হলো এতে রয়েছে ফ্লেক্সিবল ডিসপ্লে।

ফ্লেক্সিবল ডিসপ্লে থাকাতে স্মার্টওয়াচ এর মতো ছোট গ্যাজেটেও ৪ ইঞ্চির বিশাল ডিসপ্লে দেয়া সম্ভব হয়েছে।
স্মার্টওয়াচটির অফিশিয়াল ভিডিও টিজার নিচে সংযুক্ত করে দেয়া হলো।

স্মার্টওয়াচটির কালার ডিসপ্লেটি ওলেড প্রযুক্তির। তাই এতে সব কন্টেন্ট অনেক ভাইব্রেন্ট দেখাবে। সেই সাথে এটি অনেক কম ব্যাটারি পাওয়ার খরচ করবে। ডিসপ্লের চারপাশে বেজেল এর পরিমাণও নেহাত কম নয়।

অন্যদিক থেকে বলা চলে পুরো ঘড়িটিই একটি ডিস্প্লে। মানে সাধারণ ঘড়ির হিসেবে ডায়াল গেজ থেকে শুরু করে স্ট্র্যাপ এরিয়া পর্যন্ত এই ফ্লেক্সিবল ডিসপ্লেটি অবস্থান করছে। কোয়ালকম এর স্ন্যাপড্রাগন ওয়্যার ২ারমডেলের চিপসেট এর সাথে এতে আছে ১ জিবি র‍্যাম।

সাথে ৮ জিবি পর্যন্ত বিল্ট ইন স্টোরেজ তো আছেই। এতে ৫ মেগাপিক্সেলের একটি ফ্রন্ট ফেসিং ক্যামেরা আছে। ক্যামেরার সাইডে দুটি বাটন এবং অন্যদিকে একটি সেন্সর অবস্থান করছে। স্মার্টওয়াচটিকে শক্তি দিবে ৫০০ মিলিএম্প এর একটি ছোট ব্যাটারি।

এটি ৪জি ই-সিম সাপোর্ট করবে। এন্ড্রয়েডের একটি কাস্টমাইজড ভার্সনে চলবে ঘড়িটি।

এর স্ট্যান্ডার্ড ব্ল্যাক ভ্যারিয়েন্ট এর মূল্য ধরা হয়েছে ৩৫০০ ইউয়ান ( বাংলাদেশি টাকায় আনুমানিক ৪৪০০০ টাকা)। অন্যদিকে ১৮ ক্যারেট সোনায় মোড়ানো স্টিল ভ্যারিয়েন্ট এর দাম পরবে ৪৫০০ ইউয়ান যা আনুমানিক ৫৬০০০ বাংলাদেশি টাকার সমান।

[★★] আপনিও একটি টেকবাজ একাউন্ট খুলে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি নিয়ে পোস্ট করুন! হয়ে উঠুন একজন দুর্দান্ত টেকবাজ! এখানে ক্লিক করে নতুন একাউন্ট তৈরি করুন।

ফেসবুকে যুক্ত হোন!

সর্বশেষ প্রযুক্তি বিষয়ক তথ্য পেতে ইমেইলে ফ্রি সাবস্ক্রাইব করুন!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.